আপেলের বীজ থেকে চারা তৈরি সবচেয়ে সহজ উপায় | Apple seeds germination method

আপেলের বীজ থেকে চারা উৎপাদন করা অনেক সহজ। এ বিষয়টা আপনারা হয়তো অনেকেই জানেন না যে কিভাবে আপেলের  বীজ থেকে খুব সহজে চারা করতে হয়। আজ আমি আপনাদের এই বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব। আপনারা মনোযোগ সহকারে লেখাটি পড়তে থাকুন।

 

আপেলের বীজ থেকে চারা তৈরি সবচেয়ে সহজ উপায়

আপেলের বীজ থেকে চারা উৎপাদন পদ্ধতিঃ

আপেল বীজ থেকে আপেলের চারা উৎপাদন করা সহজ। আপনি চাইলেই নিজে আপেলের বীজ থেকে চারা উৎপাদন করতে পারেন। আমার লেখাটা যদি আপনি সুন্দর করে পড়েন।

আরো পড়ুন

জামরুলের মোরব্বা 
বিকাশ একাউন্ট ডিলিট করার সঠিক নিয়ম 
দ্রুত শিওর ব্যালেন্স চেক করুন
টেলিগ্রাম একাউন্ট তৈরি করার উপায়
থাই জামরুল গাছে কলম করার সহজ উপায় 

আপেলের  বীজ থেকে চারা উৎপাদনের জন্য প্রয়োজনীয় উপকরণ সমূহঃ

১. ঢাকনা সহ প্লাস্টিকের কৌটা
২. টিস্যু পেপার
৩. পলিথিন ব্যাগ
৪. পরিপক্ক আপেল

আপেলের বীজ থেকে চারা তৈরি সবচেয়ে সহজ উপায় :

আপনি কিছু উপায় অবলম্বন করার মাধ্যমে খুব সহজে আপনি নিজেই বীজ থেকে চারা তৈরি করতে পারেন।

১. সর্বপ্রথম আপনাকে পরিপক্ক সুন্দর একটি আপেল সংগ্রহ করতে হবে।

২. তারপর আপেলটি সাবধান ভাবে কাটবেন যেন বীচি  কেটে না যায়।

৩. আপেলটি কাটার পর আপেল থেকে বিচি সংগ্রহ করে নিবেন।

৪. আপনাকে বিচি সংগ্রহের সময় অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে আপেলের বিচি যেন পরিপক্ক হয় শুকনা না হয়।

৫. আপনি পাঁচটি বিচি বেছে নিলাম।

৬. বিচিগুলো সংগ্রহ করার পর প্লাস্টিকের কৌটার মধ্যে বিচিগুলি রেখে কৌটা ভরে জল দিবেন।

৭.তারপর বিচিগুলি পানির ভিতরে রেখে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিবেন।

৮. আপনাকে ২৪ থেকে ৪৮ ঘন্টা পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।

৯. অপেক্ষা করার পর কৌটাটি থেকে বিচিগুলি উঠিয়ে নিবেন।

১০. এবার প্লাস্টিকের কৌটার উপরে একটি টিস্যু দিয়ে দিবেন।

১১.তারপর বীজগুলি টিস্যুর উপর সাজিয়ে দিবেন।

১২. অবশ্যই বীজগুলি একটু স্পেস করে দিবেন।

১৩. টিসু পেপারে রাখা বীজগুলির উপরে একটু জল স্প্রে করে দিবেন। যাতে করে বীজ গুলি ভিজা থাকে।

১৪. এবার আরেকটি টিস্যু পেপার দিয়ে বীজগুলি ঢেকে দিয়ে এর উপর একটু জল ছিটিয়ে দিবেন।

১৫. এবার প্লাস্টিকের কৌটাটি বন্ধ করে একটি পলিটিনের ভিতরে দিয়ে মুখটা বেঁধে দিবেন।

১৬.তারপর আপনাকে কৌটাটি নরমাল ফ্রিজে রাখতে হবে। কারণ আপেলের বীজগুলি অঙ্কুরোদগামের জন্য একটু ঠান্ডা আবহাওয়া দরকার আছে।

১৭.আপনি ১৫ দিন পর আপেলের বীজ রাখা কৌটাটি খুলে দেখতে হবে।

১৮. যে জল আছে কিনা জল শুকিয়ে গিয়েছে কিনা।

১৯. যদি জল শুকিয়ে যায় তাহলে আপনাকে আরেকটু জল স্প্রে করে দিতে হবে।

২০. কারণ এটি হালকা ভেজা ভাব অবশ্যই রাখতে হবে।

২১. এরপর ৩০ দিন পর দেখে নিব বীজগুলি অঙ্কুরোদগম হয়েছে কিনা।

২২. যদি বীজ অঙ্কুরিত না হয় তাহলে আর এক সপ্তাহ জন্য ফ্রিজে রেখে দিবেন।

২৩. এরপর অবশ্যই আপনারা দেখতে পারবেন আপেলের বীজ অঙ্কুরিত হয়েছে।

২৪. এবার যে পাত্রে লাগাবেন উক্ত পাত্রের নিচে দিকে ছিদ্র থাকতে হবে।

২৫. কারণ অতিরিক্ত পরিমাণ পাত্রে জল থাকলে গাছ নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

২৬ আপনাকে নারকেলের খোসা ব্যবহার করতে হবে।

২৭. টবের নিচের দিকে নারকেলের খোসা দিয়ে তার উপর মাটি দিবেন।

২৮. মাটি দেয়ার পূর্বে অবশ্যই মাটিটা ভালোভাবে জৈব সার মিশিয়ে দিতে হবে।

২৯.মাটিটা যদি চেলে নেন তাহলে অনেক ভালো হয়।

৩০. মাটিতে কোন ময়লা থাকলে ফেলে দিতে পারবেন।

৩১. আপনি যদি নারকেলের খোসা টবের নিচের অংশ দেন তাহলে মাটিটি ধুয়ে যাবে না।


৩২. মাটির মধ্যে প্রয়োজনীয় উপকরণ দেওয়া হলে মাটিতে ভালোভাবে মিশিয়ে নেওয়ার পর বীজগুলিকে টপের ভিতরে বসিয়ে দিবেন।

৩৩.  তারপর হালকা মাটি দিয়ে ঢেকে দিতে হবে।

৩৪. এরপর সম্পূর্ণ মাটি জল দিয়ে ভিজিয়ে দিতে হবে।

৩৫. টবটিকে এমন একটি স্থানে রাখতে হবে যেখানে সূর্যের আলো খুবই কম পড়ে।

৩৬.আপনি ১৫ থেকে ১৬ দিন পর দেখতে পাবেন চারাগুলি ২ ইঞ্চি মতো লম্বা হয়েছে।

৩৭. আরো কিছুদিন পর দেখতে পাবেন গাছটি ছয় ইঞ্চি মতো লম্বা হয়েছে।

৩৭. গাছটি যখন ৬ ইঞ্চি পরিমাণ লম্বা হবে তখন গাছের গোড়া কুপিয়ে মাটি আলগা করে দিতে হবে।

৩৮. এটা আপেল গাছের জন্য খুবই উপকারী

৩৯. তারপর আপনি পরিমাণ মতো সার প্রয়োগ করতে পারেন।

৪০. সার প্রয়োগের পর অবশ্যই গাছে জল দিতে হবে।


পরিশেষে বলা যায় আপনি এভাবে খুব সহজেই আপেলের বীজ থেকে চারা উৎপাদন করতে পারেন। আপনি যদি উক্ত লেখাটি কয়েকবার ভালোভাবে পড়েন তাহলে খুব সহজেই আপনি নিজেই আপেলের বীজ থেকে চারা তৈরি করতে পারবেন।

আরো পড়ুন

মাগুরা পাসপোর্ট অফিসের মোবাইল নাম্বার
জীবন বদলে দেওয়ার মতো বাণী
Merchant bkash app payment 
বেলি ফুল
থাই জামরুল গাছ চেনার সহজ উপায়


আমার সাইটটি ভিজিট করার জন্য সকলকে ধন্যবাদ। আপনারা আবারও আমার সাইটটি ভিজিট করবেন। এরকম আরো অনেক বিষয় নিয়ে আমার সাইটে আমি লিখে থাকি। আপনারা সেগুলি অবশ্যই ভিজিট করে দেখে নিতে পারেন। আশাকরি আপনাদেরই অনেক উপকারে আসবে।

Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url